ভারতের যৌনপল্লিতে ক্রমশ ভিড় বাড়াচ্ছে বাংলার মেয়েরা

0
133

ভারতের নিষিদ্ধ পল্লীতে বাড়ছে বাংলাদেশীদের সংখ্যা৷ সম্প্রতি এক সমীক্ষায় এই খবর পাওয়া গিয়েছে৷ আর এই তথ্য জনস্বমক্ষে আসতেই অস্বস্তিতে পড়েছে বাংলাদেশ সরকার৷

মহিলাদের প্রায় সবাই পাচারের শিকার হয়েই যে যৌন কাজে বাধ্য হচ্ছে তাই নয়, কয়েকটি ক্ষেত্রে স্বেচ্ছায় জড়িত হওয়ার নজিরও মিলেছে বলে দাবি ভারতীয় আধিকারিকদের।

দিল্লির বেসরকারি সংগঠন ‘শক্তি বাহিনী’র সদস্য সুবীর রায় জানিয়েছেন, মুম্বাইয়ের বিভিন্ন যৌনপল্লী থেকে দেড়শ’ এবং দিল্লির যৌনপল্লী থেকে ৮০ জন বাংলাদেশি মহিলাকে উদ্ধার করে দুই শহরের বিভিন্ন পুনর্বাসন কেন্দ্রে রাখা হয়েছে৷ ভারতের বিভিন্ন শহরে ভালো চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে সহজেই অসহায়, গরীব বাংলাদেশীদের ফাঁদে ফেলে পাচারকারীরা৷ তবে বৈধ পাসপোর্টে এসেও কোনো কোনো বাংলাদেশি মহিলারা যৌনবাণিজ্যে জড়িয়ে পড়ছে।

ফাইল ছবি

২০১৮ সালের সেপ্টেম্বরে হরিয়ানার একটি হোটেল থেকে বৈধ পাসপোর্টধারী ২০ বছর বয়সী এক বাংলাদেশি তরুণীকে উদ্ধারের ঘটনাটি নজির হিসেবে তুলে ধরা যেতে পারে এক্ষেত্রে, পরে বাংলাদেশ হাই কমিশনারের মাধ্যমে ওই তরুণীকে ঢাকা পাঠানো হয় বলে জানান সুবীর রায়। ভারতের পশ্চিমবঙ্গ, আসাম, মিজোরাম, ত্রিপুরা, ও মেঘালয় রাজ্যের সঙ্গে বাংলাদেশের ৪ হাজার ৯৬ কিলোমিটার সীমান্ত রয়েছে।দুর্বল সীমান্ত ব্যবস্থাপনা এবং দারিদ্র্যের কারণে বাংলাদেশী মহিলারা ভারতে পাচার হচ্ছে বলে মনে করেন বাংলাদেশ হাই কমিশনের অধিকারীকরা।

প্রতিকি ছবি (ছবির সঙ্গে প্রতিবেদনের কোন সম্পর্ক নেই)

তথ্যসূত্র- বিবিসি বাংলা

Facebook Comments

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here